‘হিজাব আধুনিকতা ও আভিজাত্যের প্রতীক’ ব্যারিস্টার আবু সায়েম

275

 

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার আবু সায়েম হিজাবকে আধুনিকতা ও আভিজাত্যের প্রতীক বলে অভিহিত করেছেন। রবিবার এক ফেসবুক স্ট্যাটাসে প্রখ্যাত এ রাজনীতিবিদ, কবি ও আইনজীবী ব্যক্তিগত মত প্রকাশ করে লিখেন, “হিজাব আমার চোখে আধুনিকতা ও আভিজাত্যের প্রতীক; হিজাব সম্ভ্রান্ত মানুষের পোষাক।”

সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যারিস্টার সায়েমের স্ট্যাটাসটি ছড়িয়ে পড়লে সাধারণ ফেসবুক ইউজারদের পাশাপাশি অনেক বিশিষ্টজনও তার সাথে সহমত পোষন করেন। এ বিষয়ে মুক্তির মিছিল থেকে যোগাযোগ করা হলে ব্যারিস্টার সায়েম বলেন, ‘আমি সবার মনের অতি স্বাভাবিক ও অতি সাধারণ কথাগুলোই আমার লেখনিতে সহজভাবে ব্যক্ত করেছি। আমাদের দেশের মানুষ, আমাদের সমাজ হিজাবকে এমন দৃষ্টিতেই দেখে।’

একজন নারীর বোরকা পরে সন্তানের সাথে ক্রিকেট খেলা নিয়ে যারা মন্দ প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে তাদের সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘নিজস্ব রুচিবোধকে যারা সামষ্টিক জীবনে চাপিয়ে দিতে মরিয়া, তারা মানসিকভাবে বৈকল্যগ্রস্ত ও পাশ্চাৎপদ। ব্যক্তি কিংবা গোষ্ঠীর এমন স্বেচ্ছাচারি মনোভাবই রাষ্ট্র ও সমাজের অগ্রগতির পথে মূল অন্তরায়।’

মুক্তির মিছিল পাঠকদের সুবিধার্থে ব্যারিস্টার সায়েমের স্ট্যাটাসটি নিচে হবহু তুলে ধরা হলো।

“ন্যাংটোদের অধিকার

ন্যাংটো হয়ে ছুটোছুটি-লুটোপুটি করলে সেটা হয় অধিকার, আর শালীন পোষাকে শরীর ঢেকে রাখলে নাকি ধর্মান্ধতা! কী অদ্ভুত ভাবনা, কী নোংরা মানসিকতা! এমনটি যারা বলে, তাদের দিকে তাকাবার রুচি নেই আমার, চোখ পড়ে গেলেও বমি আসে। কিন্তু তাদের সাহস দেখে আমি তাজ্জব হই। বেলাল্লাপনার অধিকার নিয়ে মাতামাতি করুক, কিছু বললাম না, কিন্তু শালীনতার বিরুদ্ধে ওরা ঘেউ ঘেউ করে কীভাবে?

হিজাব আমার চোখে আধুনিকতা ও আভিজাত্যের প্রতীক; হিজাব সম্ভ্রান্ত মানুষের পোষাক। যারা হিজাব মেনে চলে, আমি তাদের জঙ্গলের প্রাণীদের থেকে আলাদা বিবেচনা করতে ভালোবাসি। মানব সম্প্রদায়ে তারাই অনুসরণীয়।”