“অতিরিক্ত সচিব মাহবুব কবির মিলনকে ওএসডি করায় সামাজিক মাধ্যমে প্র’তিবাদের ঝড়”

191

অতিরিক্ত সচিব মাহবুব কবির মিলনকে ওএসডি করায় সামাজিক মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড়

অতিরিক্ত সচিব মাহবুব কবির মিলনকে ওএসডি করায় সামাজিক মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড় বইছে।

রেলপথ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মাহবুব কবির মিলনকে ওএসডি করায় সামাজিক মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড় বইছে।

মাহবুব কবির মিলন তার ভেরিফাইড ফেসবুকে ‘ওএসডি হলাম’ লিখে আদেশের কপিটি শেয়ারের মাত্র ১ ঘন্টার মধ্যে ১১ হাজারের অধিক মানুষ প্রতিক্রিয়া দেখায়। এ সময় ২ হাজার ৬০০টি মন্তব্য ও ২ হাজার ২০০ জন শেয়ার করে।

অধিকাংশ পাঠকই ওএসডির আদেশে ক্ষোভ, হতাশা প্রকাশ করে ওএসডির আদেশ প্রত্যাহারের দাবি জানায়।

DrKibria Khandoker লিখেছেন, আমরা কি এই অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করতে পারিনা। ফেসবুকের তুমুল শেয়ার করুন আর সবাই প্রতিবাদ করুন এটা অন্যায় এটা অন্যায় দেশের সাথে অন্যায়। আমাদের রেলওয়েকে বাঁচাতে হবে আমাদের দেশকে বাঁচাতে হবে। চলুন সবাই মিলে আমরা আন্দোলন করি। অবশ্যই এটা বাতিল করতে হবে।

মুহাম্মদ রাশেদ খাঁন লিখেছেন, খুবই দুঃখজনক। আল্লাহ আপনার সহায় হোক।
৩ মাস সময় চেয়েছিলেন দেশ থেকে দুর্নীতি দূর করতে, অথচ আপনাকেই সরিয়ে দিলো…. আর এটা করে কর্মকর্তাদের একটা মেসেজ দিলো!

Liton Sharif লিখেছেন, আপনি এফবি তে অনিয়ম সহ বিভিন্ন বিষয়াদি তুলে ধরেছেন,‌এটাই আপনার পুরষ্কার!

Sumon Deb Nath লিখেছেন, জনাব Mahbub Kabir Milon উনার অপরাধ উনি দেশ থেকে দুর্নীতির মূল উৎপাটন করতে চেয়েছিলেন!! আচ্ছা কেউ আমাকে একটু বুঝান এই যে প্রজ্ঞাপনের নিচে লেখা থাকে যে “জনস্বার্থে” এই জনস্বার্থে বলতে উনারা কি নিজেদের পেট ভরা বুঝিয়েছেন? কারণ আমি তো জনস্বার্থ বলতে জনগনের কল্যানই বুঝি এবং দুর্নীতি বন্ধ হলে জনকল্যানই হবে বলে জানি! সুতরাং কাদের স্বার্থে দুর্নীতি বন্ধ করতে চাওয়া একজন অতিরিক্ত সচিব মহোদয়কে OSD করা হলো?
এটা দিয়ে কি বুঝাতে চাইলেন আপনারা? এই সরকারের জিরো টলারেন্সে পলিসির মুখে মু** দিলেন যে জনাব!! আসলে আপনারা জিরো টলারেন্সের নামে বলতে চাইছেন, “দুর্নীতি চলছে, দুর্নীতি চলবে নির্বিঘ্নে”! তাইনা?

Imran Akhand লিখেছেন, মিলন ভাই, আপনাকে ওএসডি করাটাই প্রমাণ করে মৌচাকের ঠিক জায়গাতে ঢিলটি মেরেছিলেন।

Ahasanul Alam Sajib লিখেছেন, মিলন স্যারের পোস্টটা কপি করে রেখেছিলাম মার্চ মাসে।
আমরা এই মুজিব বর্ষেই ফুড সেইফটি রিলেটেড অনেক বিষয় সমাধান করব ইনশাআল্লাহ। ভোজ্যতেল এবং ডাল্ডা ও বনস্পতির ট্রান্স ফ্যাটি এসিডের সহনীয় মাত্রা নির্ধারণ, কীটনাশকের হেভি মেটাল, ট্যানারি বর্জ্য নিয়ন্ত্রণ, লেড মুক্ত ব্যাটারি প্রবর্তন সহ খাদ্য শৃঙ্খলের সব ধরণের হ্যাজার্ড দূর করা সহ একটি ভাল অবস্থানে যেতে পারব ইনশাআল্লাহ।
বোরো সিজন এবং কৃষি উতপাদন যাতে ব্যহত না হয়, সেজন্য সময় দিয়ে আগামি ১ জুলাই থেকে কীটনাশকের সব চালান পোর্টে আসার পর হেভি মেটাল পরীক্ষা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। এই তারিখ আর পরিবর্তন করা হবে না।
আমি কোথাও বদলি হইনি। এখনো আছি বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষে। যে কয়দিন আছি সন্তানদের জন্য যুদ্ধ করেই যাব।

Md Mohai Menur Rahman লিখেছেন, নিরাপদ খাবার বেঁচে থাকার জন্য কতটা জরুরী ভেবে স্বপ্ন দেখেও রেলে আশাহত হইনি যে- রেলেও পরিবর্তন দরকার আছে! জনগণের উপকার হবে… কিন্তু এবার! কিছুই বলার নাই…
সুস্থ থাকুন, ভালো থাকুন ভাইয়া… এটুকুই চাওয়া! আমাদের সবার দোয়ায় আর অন্তরে থাকুন।

Tarikul Islam Tarek লিখেছেন, ভালো কাজ করা যেন নিয়মিত অপরাধ হয়ে দাড়িয়েছে।

Hillol Dutta লিখেছেন, এর নাম বাংলাদেশ। যে উপকার করবে সে ধ্বংস হবে। যে প্রাণ দিয়ে উপকার করবে সে সবংশে নির্বংশ হবে। মাসটা অগস্ট।
এর নাম বাংলাদেশ।

Atique Ua Khan লিখেছেন, এই চোর সিণ্ডিকেট এর বিরুদ্ধে পুরো সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে তীব্র আন্দোলন গড়ে তোলা দরকার। সবাই শেয়ার করে প্রতিবাদ জানিয়ে পোস্ট দিন। আমাদের আশা আর স্বপ্নগুলো এভাবে ধ্বংস হয়ে যেতে দেখা যায় না। আজ সব চোরেরা বসে বিরিয়ানি খাবে। এই আদেশ অবশ্যই অবিলম্বে প্রত্যাহার চাই।

Moazzem Riad লিখেছেন, আশা করেছিলাম রেল আপনার হাত ধরে অনেকদূর আগাবে, কিন্তু স্বাপদের কাছে হেরে যেতে হল আপনাকে, তবে বিশেষ ভারপ্রাপ্ত সচিব জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় বলতে কি ওএসডি বুঝায় ?

Anukul Roy লিখেছেন, এই বয়সে আর কত দৌড়াদৌড়ি করবেন স্যার?
সব আলো কি নিভে যাবে? আলোর অপেক্ষায় রইলাম… শুভকামনা অবিরাম

Mahatab Liton লিখেছেন, আপনার একটা ছোট্ট পোস্ট হাজার হাজার
কমেন্টস পায়। দেশ বাইরে আপনার সহস্র সহস্র শুভাকাঙ্ক্ষী। কারণ একটাই দেশের প্রতি আপনার দেশপ্রেম মানুষের প্রতি শ্রদ্ধা ও ভালবাসা।
তাঁদের দোয়া আপনার সাথে সব সময়। নিরন্তর শুভ কামনা স্যার।

Jagodish Chandra Roy লিখেছেন, শেষ বয়সে এরকম বাদরের মত এই মন্ত্রণালয় ওই মন্ত্রণালয় ঝুলায় নিয়ে বেড়াচ্ছে! কোথাও আপনাকে শান্তিতে কাজ করতে দিবে না!! আপ্নি সারা দেশে ১০ জন উইং চাইছিলেন বিনিময়ে আপনাকেই ১০ টা মন্ত্রণালয় ঘুরাচ্ছে! ভাল না? ভাল তো!

S M Sadat Hossain লিখেছেন, #দুঃখজনক_সিদ্ধান্ত #সহযোগিতা_না_করে_শাস্তি
যা ভেবেছিলাম তাই হলো। উনাকে চিনি না জানিও না। কিছুদিন আগে একটা স্টেটমেন্ট শুনে ভালো লেগেছিল। কতটা সৎ হলে এবং বুকে সাহস থাকলে একজন অতিরিক্ত সচিব বলতে পারেন ১০ জন সৎ ও চৌকস কর্মকর্তা পেলে তিনি দুর্নীতি নির্মুল করতে পারবেন। তার পুরুষ্কার তিনি পেয়ে গেলেন। OSD হিসেবে পদায়ন। উনাকে একটা মন্ত্রনালয়ের দায়িত্ব দিলে তো বোঝা যেত……উনার দক্ষতা টুকু।
#জনস্বার্থে ও মহামান্য রাস্ট্রপতির আদেশ ক্রমে……!!!! মহামান্য ও মাননীয় মনে হয় না, জানেন।
#মাননীয়_প্রধানমন্ত্রী আপনি ঠিকই বলেছিলেন। আপনি ছাড়া সবাইকে কেনা যাবে।