করোনার মধ্যেই ৫ আগস্ট অযোধ্যায় রাম মন্দিরের নির্মান কাজ শুরু করবেন মোদি!

75

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আগামী ৫ই আগস্ট অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের সূচনা করবেন রাম জন্মভূমি চত্বরে ভূমি পূজা করে। গতকাল রাম জন্মভূমি ট্রাস্ট, যারা ওই মন্দির তৈরি করার দায়িত্ব পেয়েছে, তাদের একটি গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক ছিল উত্তর প্রদেশের অযোধ্যায়। সেখানে তাঁরা ঠিক করেন, আগস্ট মাসেই গোড়াতেই ভূমি পূজা সেরে ফেলা হবে।

এর আগে শিবের পুজো করে মন্দিরের কাজ শুরু করার সূচনা হয়েছিল। এবার ভূমি পূজার জন্য মন্দির নির্মাতা পরিষদ প্রধানমন্ত্রীর জন্য অপেক্ষা করছিলেন। বৈঠক শেষে পরিষদের সভাপতি নিত্য গোপাল দাস জানিয়েছেন, তাঁরা প্রধানমন্ত্রীকে দুটি বিকল্প দিন সুপারিশ করেছেন, এই দুটো দিনই শুভ দিন। এর মধ্যে প্রধানমন্ত্রী যে কোনও একটি দিন বেছে নিতে পারেন। তবে তার কিছুক্ষণের মধ্যেই জানা গিয়েছে, প্রধানমন্ত্রী ৫ই আগস্ট যাবেন বলে মৌখিক ভাবে সম্মতি দিয়েছেন।

আজ রবিবার ছুটির দিন বলে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা কিছু হয়নি, তবে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর সূত্রেও জানা গিয়েছে যে প্রধানমন্ত্রী ৫ই আগস্ট অযোধ্যায় যেতে রাজি। মোটামুটি ভাবে ঠিক হয়েছে, পূজা শুরু হবে সকাল ৮টা থেকে। বারানসি থেকে পূজারী পুরোহিতরা অযোধ্যায় যাবেন পুজো করতে। ধুমধাম করে যাগযজ্ঞ হবে। প্রধানমন্ত্রীর যাওয়ার কথা বেলা ১১টা নাগাদ, তিনি পূজা স্থলে থাকবেন ১টা ১০ পর্যন্ত। নিত্য গোপাল দাস জানিয়েছেন, আগের থেকে মন্দিরের আয়তন কিছুটা বাড়ানো হচ্ছে। নকশা অবশ্য একই রকম থাকবে, তবে ঠিক হয়েছে মন্দিরের উচ্চতা হবে ১৬১ ফুট। আড়ে বহরেও বেশ কিছুটা বাড়বে‌।

আগে কথা ছিল মন্দিরের তিনটে চুড়ো হবে, এখন ঠিক হয়েছে চুড়ো হবে পাঁচটি। এই মন্দিরের নির্মাণ কাজে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে সকলেই যাতে অংশগ্রহণ করতে পারেন, তার জন্য মন্দির কর্তৃপক্ষ ১০ কোটি পরিবারের কাছে ভিক্ষার ঝুলি নিয়ে যাবেন। তাদের সবার দানে এই মন্দির গড়ে উঠবে। মন্দিরের কাজ শুরু হওয়ার পর সাড়ে তিন বছরের মতো লাগবে শেষ হতে। এখানে উল্লেখ করা যেতে পারে, ৫ই আগস্ট দিনটি বিশেষভাবে তাৎপর্যপূর্ণ এইজন্য যে, গত বছর এই ৫ই আগস্টেই কেন্দ্রীয় সরকার জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা ৩৭০ ধারা লোপ করে রাজ্যকে দু’ভাগ করে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করেছিল।

এও মনে থাকতে পারে যে ৩৭০ ধারা আর অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ, এই দুটো জিনিস বরাবর বিজেপির নির্বাচনী প্রচারে অগ্রাধিকার পেয়ে এসেছে। জম্মু ও কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা লোপের বর্ষপূর্তির দিনে রাম মন্দির নির্মাণের সূচনা করে ভূমি পুজা এবং তাতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর উপস্থিত থাকাটা সেইজন্যই অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ ঘটনা।